করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে যে আহ্বান জানিয়েছেন তিশা

কভিড-১৯ করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে সরকারি নির্দেশনা মেনে ঘরে অবস্থান করছেন নুসরাত ইমরোজ তিশা এবং মোস্তফা সরয়ার ফারুকী দম্পতি। ১৫ দিন ধরে ঘরে কী করে তাদের সময় কাটছে তা জানিয়েছেন তিশা। ইউনিসেফ বাংলাদেশের ফেসবুক পেজে তাদের অন্দরের একটি ভিডিও শেয়ার করা হয়েছে। সেখানে তিশা জানিয়েছেন, তাদের বাড়িতে থাকার কঠিন সময়ের গল্প। আর জানালেন কি করে বাড়িতে থাকার এই সময়টা কাজে লাগানো যায়।

তিশা জানান, তার স্বামী ফারুকী ঘরের থাকার সময়টাকে তিন ভাগে ভাগ করেছেন। চলচ্চিত্রের কাজ, ঘরের কাজ ও বিশ্রাম। শেষের দুটি তিনিও করছিলেন। শুটিংয়ের জন্য বাইরে যাওয়া বন্ধ। সৃজনশীল কাজ কী করবেন তিশা চিন্তা করে উঠতে পারছিলেন না। পরে ঘরের পুরোনো জিনিসপত্র দিয়ে তৈরি করেছেন দারুণ সব শোবিজ, কুশন কাভারসহ নানা জিনিস। তিশা বলেন, দুই দিন আগেও জানতাম না আমি এসব করতে পারি। আপনারাও চাইলে নিজেকে নতুন করে আবিষ্কার করতে পারেন। নতুন কিছু শিখতে পারেন। অনেক আগে বই কিনে রেখেছেন সেগুলো পড়তে পারেন। এইভাবে সময়টাকে উপভোগ্য করে তুলতে পারেন।

ভিডিওতে সবার প্রতি আহ্বান জানিয়ে তিশা বলেন, এ দুর্যোগের দিনে তরুণদের দায়িত্ব হচ্ছে ঘরে থাকা, অন্যদের ঘরে থাকতে উৎসাহিত করা। করোনার বিরুদ্ধে আমাদের এ লড়াই অনেক লম্বা সময়ের জন্য হতে যাচ্ছে। একটু ধৈর্য সহকারে সময়টা পার করতে হবে। পরিবারের সবাই মিলে কাজ ভাগাভাগি করে নিতে হবে। বয়জ্যেষ্ঠ ও শিশুদের প্রতি যত্নশীল হতে হবে। প্রার্থনা করতে হবে যাতে আমরা এ ঝড়টা খুব তাড়াতাড়ি পার হয়ে যেতে পারি। নিশ্চয়ই পারবো, পারবো না?

আরও পড়ুন