গোবিন্দগঞ্জে পূজা উদযাপন পরিষদের বিশাল মানববন্ধণ কর্মসূচি পালিত

গোবিন্দগঞ্জ (গাইবান্ধা) সংবাদদাতা)

বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ ও হিন্দু বৌদ্ধ খ্রীষ্টান ঐক্যপরিষদ গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা শাখার আয়োজনে মহিমাগঞ্জ মৎস্যজীবি সমিতির সভাপতি শম্ভু চরণ দাস এর উপর সন্ত্রাসী শাহিন বাহিনী কর্তৃক মর্ধ্যযুগীয় কায়দায় নির্মম ভাবে হামলার প্রতিবাদে এক বিশাল মানববন্ধণ কর্মসূচি পালিত হয়েছে।

গত ২২ অক্টোবর (মঙ্গলবার) দুপুর ১২ টার দিকে গোবিন্দগঞ্জ থানামোড়ে এ মানববন্ধন চলাকালে উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি শ্রী তনয় কমুার দেব এর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন গাইবান্ধা জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি শ্রী রনজিৎ কুমার বখশি, সাধারণ সম্পাদক শ্রী দীপক কুমার পাল, উপজেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রীষ্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি শ্রী শৈলেন্দ্র মোহন রায়, উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক পৌর প্যানেল মেয়র শ্রী রিমন কুমার তালুকদার, ছাত্র ও যুব ঐক্য পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক শ্রী চঞ্চল শাহা প্রমূখ।

বক্তারা বলেন, সরকারের জলমহাল নীতি অনুযায়ী মহিমাগঞ্জ মৎস্যজীবি সমিতির সভাপতি শ্রী শম্ভু চরণ দাস ৯ টি পুকুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার সাথে চুক্তিনামা মোতাবেক লিজ নেয়। উপজেলার শাখাহার ইউনিয়নের দইহারা গ্রামের রফিকুল ইসলামের ছেলে পুকুর সন্ত্রাসী শাহিন মিয়া অবৈধ ভাবে পুকুরগুলো দখল করে রাখার কারণে মিডিয়ায় সত্য ঘটনা তুলে ধরে সাক্ষাতকার দেওয়ায় শাহিন মিয়া ও তার দোসরেরা বাড়ী থেকে শম্ভু চরণ দাসকে ডেকে নিয়ে এসে হত্যার উদ্দেশ্যে কোচাশহর বাজারে নির্মম ভাবে বেদম মারপিট করে। এ ঘটনায় থানা পুলিশ ৪ জনকে গ্রেফতার করলেও মূল আসামী শাহিন মিয়াকে গ্রেফতারে থানা পুলিশকে ২৪ ঘন্টা সময় ধরিয়ে দেন নেতৃবৃন্দ।

আরও পড়ুন