মুক্তিযোদ্ধা টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ গোবিন্দগঞ্জ সদরে প্রতিষ্ঠা করার দাবী

গোবিন্দগঞ্জ (গাইবান্ধা) সংবাদদাতাঃ গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার রাজাহ
ইউনিয়নের নওগাঁ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০০ গজপূর্বে গত ২৮ নভেম্বর মুক্তিযোদ্ধা
টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ স্থাপনের প্রতিবাদ জানিয়ে বিক্ষোভ করেছেন মুক্তিযোদ্ধা ও
অত্র ইউনিয়নের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানগণ। গত ২৫ নভেম্বর ওই ইউনিয়নের সকল শিক্ষা

প্রতিষ্ঠানের প্রধানগণ যৌথ ভাবে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর প্রস্তাবিত
মুক্তিযোদ্ধা টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ অনত্র স্থানান্তর করার অভিযোগ দায়ের করেছেন। তাদের অভিযোগ রাজাহার ইউনিয়নে মাত্র ১৪ হাজার লোকের বসবাস। সেখানে ৩টি উচ্চ

বিদ্যালয় ৬টি দাখিল মাদ্রাসা ৯টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ও দ্ধুসঢ়;’টি এবতেদায়ী
মাদ্রাসা আছে। বর্তমানে এসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছাত্র/ছাত্রী সংকটে ভুগছে। অপর
দিকে গোবিন্দগঞ্জ মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড সহ শিক্ষানুরাগিরা চায় মুক্তিযোদ্ধা

টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ মুক্তিযোদ্ধার প্রজন্ম সহ সর্বস্তরের জনসাধারণের ছেলে
মেয়েরা এ প্রতিষ্ঠানে পড়ালেখা করতে পারে। এ সুবিধার্থে উপজেলা সদরে এ কলেজটি
প্রতিষ্ঠা করার জন্য তারা বিক্ষোভ শেষে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার মাধ্যমে প্রশাসনের
সংশ্লিষ্ঠ বিভাগের আশুহস্তক্ষেপ কামনা করে স্বারকলিপি প্রদান করেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান শেখ ছাদেক, উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ সভাপতি প্রধান আতাউর রহমান বাবলু, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক মিয়া আসাদুজ্জামান হিরু, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সাবেক কমান্ডার নুরুল ইসলাম আজাদ, ডেপুটি কমান্ডার আব্দুল হান্নান মন্ডল, সহকারী সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলু রহমান পুটু, বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা আব্দুস সামাদ, আব্দুল কাফি প্রধান, সাবেক ডেপুটি কমান্ডার আবেদ আলী ও নওগাঁ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নাজমুল হক প্রমূখ।

আরও পড়ুন