ফেসবুকে পরিবারের ছবি পোস্ট করছেন?

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর, ২০১৮
  • ৬২ বার পঠিত

আপনি না বুঝেই হয়তো পরিবারের সদস্যদের ছবি ফেসবুকে পোস্ট করছেন। কিন্তু ফেসবুক এ ছবি নিয়ে কী পরিকল্পনা করছে, তা কি জানেন? ফেসবুক সম্প্রতি একটি পেটেন্টের জন্য আবেদন করেছে, যাতে পরিবারের সব সদস্যের জন্য বিশেষ বিজ্ঞাপন দেখানো সহজ হবে। এ জন্য আপনার পোস্ট করা পরিবারের ছবিটি তারা বিশ্লেষণ করবে। এ বছরের ১০ মে ওই আবেদন করে ফেসবুক, যা ১৫ নভেম্বর প্রকাশিত হয়।

ওই আবেদনে বলা হয়, ফেসবুকের তৈরি অ্যালগরিদম ছবিতে থাকা বিভিন্ন উপাদান শনাক্ত করতে পারবে। এর মধ্যে মুখ বা ছবির অন্যান্য তথ্য ঘেঁটে ফেসবুক ব্যবহারকারীর পরিবারের একটি পুরোপুরি প্রোফাইল তৈরি করবে ফেসবুক। ফেসবুক যদি এই প্রোগ্রাম বাস্তবায়ন করে, তবে পরিবারের সদস্যদের লক্ষ্য করে নেওয়া তাদের কর্মসূচিগুলোর সঙ্গে নতুন পদ্ধতিটিও যুক্ত হবে।

বর্তমানে ফেসবুক পরিবারের সদস্যদের শনাক্ত করতে নানা তথ্য বিশ্লেষণ করে। বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান মার্কেটিং ল্যান্ডের তথ্য অনুযায়ী, ফেসবুক প্রোফাইলে থাকা রিলেশনশিপের তালিকা যেমন দেখে, তেমনি নামের মিল, অবস্থান, একই ধরনের লাইফ ইভেন্ট শেয়ার, চেক ইন প্রভৃতি বিশ্লেষণ করে। কিন্তু নতুন পদ্ধতিতে আরও উন্নত উপায়ে তথ্য সংগ্রহ করবে ফেসবুক। ছবির ট্যাগ, বিবরণ, ছবি পোস্টকারীর আইপি ঠিকানাসহ নানা তথ্য সংগ্রহ করবে। এতে পরিবারে কতজন সদস্য আছে তা ফেসবুকের জানা থাকবে। ফেসবুকের কাছে যত বেশি তথ্য থাকবে, ততই বিজ্ঞাপনদাতাদের আকর্ষণ করা সুবিধা হবে। কারণ, বিজ্ঞাপনদাতারা বয়স, লিঙ্গ, আর্থসামাজিক অবস্থাসহ নানা তথ্য জেনে তবে বিজ্ঞাপন দেন।

প্রযুক্তিবিষয়ক ওয়েবসাইট দ্য ভার্জ বলছে, একটি উদাহরণে দেখা যায়, একজন পুরুষ ফেসবুক ব্যবহারকারীর পোস্ট করা ছবিতে দুজন নারী প্রায় থাকেন। বন্ধুরা কোনো ছবিতে ট্যাগ করলেও তাঁদের উপস্থিতি থাকে। একটি একক ছবিতে এক তরুণীকে দেখা যায়, যার শিরোনাম ছিল ‘মাই অ্যাঞ্জেল’। ফেসবুকের সিস্টেম তখন ওই পরিবারে একজন পুরুষ ও দুজন নারী মিলিয়ে তিনজন সদস্য রয়েছে বলে ধরে নেয়। ওই নারীর দুজনের মধ্যে একজন স্ত্রী ও একজন কন্যা বলে শনাক্ত করতে পারে ফেসবুক। অনেক সময় ফেসবুকের এ অনুমান সঠিক হয় না। কিন্তু এ ধরনের তথ্য ব্যবহার করে বিজ্ঞাপনদাতাদের আকর্ষণ করতে সুবিধা হয়।

বাজার বিশ্লেষকেরা বলছেন, পরিবারের সদস্যদের কাছে আনতে ফেসবুক সম্প্রতি বেশি গুরুত্ব দেওয়ার কথা বলেছে। তারা পোর্টাল নামে ভিডিও চ্যাটের জন্য বিশেষ ডিভাইসও উন্মুক্ত করেছে। এতে পরিবারের সদস্যরা চ্যাট বা ভিডিও কল করতে পারবেন। এতে যে স্মার্ট ক্যামেরা যুক্ত রয়েছে তাতে উন্নত ফেস ট্র্যাকিং ব্যবস্থা রয়েছে। ফেসবুক বলছে, এ ডিভাইস থেকে কল ও অ্যাপের মাধ্যমে যে তথ্য সংগ্রহ করা হবে তা অন্য প্ল্যাটফর্মেও বিজ্ঞাপন দেখাতে ব্যবহার করবে তারা।

ফেসবুক সাধারণত যেসব প্রযুক্তির পেটেন্ট করে বা পরীক্ষা চালায়, সব সময় তা উন্মুক্ত করে না। ছবি বিশ্লেষণ করে পরিবারের সদস্যদের শনাক্ত করার পদ্ধতিটি ফেসবুক সরাসরি চালু করবে কি না, তা সময়ই বলে দেবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..