যেসব কারণে হোয়াটসঅ্যাপে সাসপেন্ড হতে পারেন

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ২০ নভেম্বর, ২০১৮
  • ২৪ বার পঠিত

এতদিন ছিল অবাধ স্বাধীনতা৷ এবার সেই স্বাধীনতাতেই লাগাম টানতে তৎপর হল হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ৷ বিগত কয়েক বছরে ম্যাসেজিংয়ের সংঙ্গাকে পুরোপুরিভাবে বদলে দিয়েছে হোয়াটাসঅ্যাপ৷

দিনে দিনে বেড়েছে গ্রহণযোগ্যতা৷ কারণ অবশ্যই আকর্ষণীয় ফিচারস৷ কিন্তু, এবার হোয়াটসঅ্যাপে আর চলবে না যথেচ্ছাচার৷ শুধু তাই নয়, নিয়ম অমান্য করলে হতে পারে শাস্তি৷ নিজের অজান্তেই হতে পারেন ব্যান অথবা সাসপেন্ড৷চলুন জেনে নেই কোন কারণে হোয়াটসঅ্যাপে সাসপেন্ড হতে পারেন আপনি-

১) হোয়াটসঅ্যাপের নিয়মানুসারে অবৈধ, ঘৃণ্য, হেনস্থাজনক, ভয় দেখানো ম্যাসেজ আদান প্রদান করলেই হতে পারে শাস্তি৷

২) অনেকের মধ্যেই ফেক অ্যাকাউন্ট খোলার প্রবণতা থাকে৷ কখনও ফেসবুক তো আবার কখনও হোয়াটসঅ্যাপে৷ কিন্তু, হোয়াটসঅ্যাপের নিয়মাবলীকে অমান্য করে যদি কেউ ভুয়া অ্যাকাউন্ট খোলেন৷ তবে, সেই ব্যক্তিকে ব্যান করা হতে পারে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ৷

৩) কনট্যাক্ট লিস্টের বাইরে থাকা ইউজারদের খুব সহজেই ম্যাসেজ পাঠানো যেত৷ কিন্তু, এবার সেখানেও থাকছে বিধিনিষেধ৷

৪) মাঝেমাঝেই হোয়াটসঅ্যাপকে ব্যবহার করে ভাইরাস কিংবা মালওয়্যার আইটেম পাঠানো হয়ে থাকে৷ তবে, এখন যদি কোন ইউজার এই ধরণের কাজ করেন তবে ব্যান করা হতে পারে ইউজারকে৷

৫) হোয়াটসঅ্যাপ সার্ভার হ্যাক কিংবা কারও উপর বিনা অনুমতিতে নজরদারির করার জন্যও ব্যান করা হতে পারে ইউজারকে৷ অনেকেই অন্য ইউজারদের গোপন তথ্য সংগ্রহ করার জন্য এই পন্থা অবলম্বন করেন৷

৬) হোয়াটসঅ্যাপ ব্যানের আরও একটি কারণ হতে পারে হোয়াটসঅ্যাপ প্লাস৷ হোয়াটসঅ্যাপের ওয়েবসাইট জানাচ্ছে, ‘হোয়াটসঅ্যাপ প্লাস’ হোয়াটসঅ্যাপের অনুমোদনপ্রাপ্ত নয়৷ হোয়াটসঅ্যাপের সঙ্গে ‘হোয়াটসঅ্যাপ প্লাস’এর কোন সম্পর্ক নেই৷ ‘হোয়াটসঅ্যাপ প্লাস’কে সার্পোটও করা হচ্ছে না৷ অ্যাপটি ব্যবহারের সময় সর্তক থাকুন৷ কারণ, হোয়াটসঅ্যাপ প্লাসের মাধ্যমে খোয়া যেতে পারে আপনার ব্যাক্তিগত তথ্যও৷

৭) দ্বন্দ্ব বা মনোমালিন্যের সময় আমরা অনেকই ব্লকের অপশনটি ব্যবহার করে থাকি৷ তবে, যদি আপনি একাধিক ইউজার দ্বারা ব্লক হন৷ তবে, বন্ধ হতে পারে আপনার হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট৷ তাই, সেদিক থেকে সর্তক থাকুন৷

৮) কোন হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ বা কনট্যাক্টের বিরুদ্ধে রির্পোট করার সুযোগ দেয় হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ৷ তাই, যদি একাধিক ইউজার আপনার বিরুদ্ধে রির্পোট অপশনটিকে ব্যবহার করে৷ তবে ডিঅ্যাক্টিভেট করা হবে আপনার হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্টকে৷

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..