যে কোন রুট দিয়ে বৈধ ভিসায় ভারতে ঢোকা যাবে’

advertisement

বাংলাদেশিদের ভ্রমণ সহজ করতে নতুন উদ্যোগ নিল ভারত। বাংলাদেশি পর্যটকদের দীর্ঘদিনের দাবি ছিল ভারতীয় সব রুটের ব্যারিয়ার তুলে দেওয়ার। এবার সেই রুট ব্যারিয়ার সম্পূর্ণ উঠে না গেলেও এখন থেকে নির্দিষ্ট ফি দিয়ে ভারতীয় ভিসা কেন্দ্রে পাসপোর্ট জমা করলেই যোগ হয়ে যাবে চাহিদমতো নতুন রুট।

গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে ঢাকার ভারতীয় হাইকমিশনের চ্যান্সারি হলে হাইকমিশনার হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা এক ব্রিফিংয়ে  বিষয়টি জানান। যার ফলে বাংলাদেশি পর্যটকদের দীর্ঘদিনের চাহিদা কিছুটা পূরণ হবে বলে মনে করা হচ্ছে।

হাইকমিশনার জানান, নতুন উদ্যোগে যে কেউ বাংলাদেশের যে কোনো ভিসা অ্যাপ্লিকেশন সেন্টারে ৩শ টাকা ফি দিয়ে নতুন রুট যুক্ত করার আবেদন করতে পারবেন। ভিসার মতো ফর্ম পূরণ করে পাসপোর্ট জমা দিয়ে আবার নির্দিষ্ট দিনে পাসপোর্ট মিলবে। এতে একজন বৈধ ভিসা থাকাকালীন সময়ে যতোবার খুশি ততোবার নতুন রুট যুক্ত করতে পারবে। আবেদনের তিন কার্যদিবসের মধ্যে পাসপোর্ট হাতে পাওয়া যাবে।

সব আইভিএসিতে রুট অনুমোদনের আবেদন জমা দেওয়ার জন্য আলাদা কাউন্টার থাকবে। একজন আবেদনকারী বিদ্যমান ২৪টি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর এবং গেদে/হরিদাসপুর রেল ও সড়কপথ ছাড়াও অতিরিক্ত দু’টি রুটের জন্য আবেদন করতে পারবেন। ভারতীয় হাইকমিশন ও ভারতীয় ভিসা আবেদন কেন্দ্রের ওয়েবসাইটে

(https://www.hcidhaka.gov.in/pdf/endorsementofportapplicationform.pdf ও http://www.ivacbd.com/Other-Forms) আবেদন ফর্ম পাওয়া যাবে। ভারতীয় হাইকমিশনে আর আবেদন জমা নেওয়া হবে না।

ব্রিফ করছেন হাইকমিশনার, যদি কারো আগরতলা দিয়ে বৈধ ভিসা থাকে আর তিনি যদি দার্জিলিং যেতে চান তাহলে তিনি পঞ্চগড়ের ফুলবাড়ি কিংবা বুড়িমারি দিয়ে নতুন রুট যুক্ত করার আবেদন করতে পারবেন। পারমিশন মিললে ঢুকতে কিংবা বেরুতে পারবেন নতুন রুট দিয়েও। কেউ চাইলে ডাউকি দিয়ে ঢুকে ফুলবাড়ি দিয়ে বের হওয়ার আবেদনও করতে পারবেন। আবার নতুন ভিসার সময়ও এক রুট দিয়ে ঢুকে আরেক রুট দিয়ে বের হওয়ার আবেদন করা যাবে।

You might also like

advertisement