মালয়েশিয়া সড়ক দুর্ঘটনায় আহত খলিল মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন।

advertisement

মালয়েশিয়ায় সড়ক দুঘটনায় গুরুতর আহত হয়ে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন মো. খলিলুর রহমান (৪৮)। তিনি এখন পেনাংয়ের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক। খলিলুর রহমান ব্রাহ্মণবাড়ীয়ার নবীনগর থানার গৌলতপুর নয়াহাটি এলাকার মৃত মহুরম আলীর ছেলে। আগামী মাসে
তার ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে যাবে। গত ৭ জানুয়ারী মালয়েশিয়ার পেনাং রাজ্যে বাইসাইকেলযোগে নিজ কর্মস্থলে যাওয়ার পথে পেছন থেকে একটি গাড়ি তাকে
ধাক্কা দিলে খলিলুর মারাত্মকভাবে আহত হন। পরে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

মালয়েশিয়াস্থ ব্রাহ্মণবাড়ীয়া জেলা এসোসিয়েশনের সভাপতি মো. নাজমুল হাসান বাবুল জানান, খলিলুর মুমূর্ষু অবস্থায় পেনাংয়ের একটি হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। ইতিমধ্যে তার চিকিৎসায় ২০ হাজার রিংগিত হাসপাতালের বিল বাকি হয়ে
গেছে। তাকে দেশে ফেরত পাঠাতে প্রয়োজন আরও ১৫ হাজার রিংগিত। কিন্তু তার দরিদ্র পরিবারের পক্ষ থেকে এই বিল পরিশোধ করা সম্ভব হচ্ছে না। তার অবস্থার উন্নতি না হওয়ায় তাকে দ্রুত দেশে ফেরত পাঠানো প্রয়োজন। অসহায় খলিলুর রহমানকে দেশে ফেরত পাঠাতে আমরা সকল প্রবাসী ভাইদের সহযোগিতা কামনা করি। যারা সহযোগিতা করতে চান তাদের এই নম্বরে যোগাযোগ করার আহ্বান জানানো হলো- ব্রাহ্মণবাড়ীয়া জেলা এসোসিয়েশন
মালয়েশিয়ার সভাপতি মো. নাজমুল ইসলাম বাবুল (০০৬০১২৩১০০৪৭২)
জানা গেছে, ২০০৭ সালে মো. খলিলুর রহমান কলিং ভিসায় কাজ নিয়ে মালয়েশিয়ায় আসেন। তার স্ত্রী ও চার মেয়ে রয়েছে। বড় মেয়ে এসএসসি পরিক্ষার্থী। ইতিমধ্যে তার চিকিৎসা বাবদ মোটা অংকের টাকা খরচ হয়ে গেছে। মালয়েশিয়ায় তার কোন নিকট আত্মীয় না থাকার কারণে তার চিকিৎসা বা খরচ চালিয়ে যাওয়া সম্ভব হচ্ছে না। সকল হৃদয়বান প্রবাসীদের কাছে খলিলুরের জীবন বাচাঁতে সহযোগিতার হাত বাড়ানোর অনুরোধ করেছেন তার পরিবার।

advertisement

You might also like

advertisement