৩ জলদস্যু বাহিনীর ৫৭ সদস্যের আত্মসমর্পণ

 ২৩ মে ২০১৮ বুধবার  ভিডিওসহ দেখতে ক্লিক করুন

অনলাইন ডেস্কঃ

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামালের কাছে বুধবার দুপুরে অস্ত্র জমা দিয়ে আত্মসমর্পণ করছে সুন্দরবনের তিন জলদস্যু বাহিনীর ৫৭ সদস্য। খুলনার লবণচরায় র‌্যাব-৬ এর সদর দপ্তরে নিজেদের অস্ত্র ও গোলাবারুদ জমা দিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে আত্মসমর্পণ করেন তারা।

জানা যায়, খুলনা অঞ্চলের তিন দস্যু বাহিনী সুন্দরবনের শ্যামনগর, মংলা, আন্দার মানিক, হারবাড়িয়া, কলাগাজি এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে জেলে অপহরণ ও মুক্তিপণ আদায় করতো। বনের ওপর নির্ভরশীল সাধারণ মানুষ রীতিমতো তাদের কাছে জিম্মি হয়ে পড়েছিল। তাদেরকে মাসোহারা দিয়ে জেলে-মৌয়ালদের বনে প্রবেশ করতে হতো। এমনকি বনরক্ষীরাও তাদের কাছে নিরাপদ দূরত্বে থাকতো। তবে সাম্প্রতিক র‌্যাবের বেশ কয়েকটি সফল অভিযানে পর দস্যুদের দৌরাত্ম্য কমতে থাকে। একই সঙ্গে সরকারের সাধারণ ক্ষমার আওতায় এসব দস্যুরা আত্মসমর্পণের পথ খুঁজতে শুরু করে।  

এক পর্যায়ে  ও নিউজ টোয়েন্টিফোর টিভি চ্যানেলের সাংবাদিকদের সঙ্গে দস্যুদের যোগাযোগ হয়। তাদের মধ্যস্থতায় র‌্যাব কর্মকর্তাদের সঙ্গে দস্যুদের মুঠোফোনে কয়েক দফা আলাপ হয়। দুপক্ষের আলোচনার পর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হাতে অস্ত্র জমা দিয়ে আত্মসমর্পণের  সিদ্ধান্ত নেয় তিন দস্যু বাহিনী।