বগুড়ার কাহালুতে ভটভটির ধাক্কায় অটোভ্যান চালক গুরুতর আহত

 ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৭ বুধবার সহ দেখতে ক্লিক করুন

শাহ্আলম, স্টাফ রিপোর্টারঃ

বগুড়ার কাহালুতে ভটভটির ধাক্কায় অটোভ্যান চালক গুরুতর আহত হয়ে হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে। আহত অটোভ্যান চালক শাহাদত হোসেন (২০) উপজেলার তেলিয়ান গ্রামের আব্দুল মান্নানের পুত্র বলে জানাগেছে। ঘাতক ভটভটির চালক কাহালু উপজেলার মহেশপুর গ্রামের মোকাব্বর হোসেন ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে গেলেও স্থানীয় লোকজন অটোভ্যান চালককে গুরুতর আহতাবস্থায় উদ্ধার করে বগুড়া শজিমেক হাপাতালে ভর্তি করে দেয়। ঘটনার বিবরণে জানাগেছে উপজেলার কাহালু- মালঞ্চা সড়কের শহরগাড়ি পাল্লাপাড়া নামক স্থানে মালঞ্চাগামী অটোভ্যানটিকে গরু বোঝাই একটি ভটভটি পিছন দিক থেকে সজোরে ধাক্কা দিলে অটোভ্যানের চালকের পা ভেঙ্গে গিয়ে সে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। সে বাঁচাও বাঁচাও বলে চিৎকার করলেও ঘাতক ভটভটির চালক সেদিকে নজর না দিয়ে পালিয়ে যায়। পরে তার চিৎকার ও আর্তনাদে স্থানীয় লোকজন ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে ভর্তি করে দেয়। হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান, তার বাম পায়ের উরুর মাঝখানে ভেঙ্গে গেছে। যা সেরে উঠতে দীর্ঘদিন সময় লাগবে। এসময় সে কোন কাজ করতে পারবে না। তিনি আরো জানান, উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকায় পাঠানো হবে। এজন্য অনেক অর্থের প্রয়োজন। শাহাদতের মা আনোয়ারা বেগম (ধলি) জানান, তাদের পরিবারে ওই ছেলেটাই একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যক্তি। শাহাদত ছাড়া পরিবারের আয়ারোজগারের আর কেউ নেই। ওরা আমার ছেলেডারে এভাবে পাও ভেঙ্গে দিল। ওরা আমার সংসারডারে অচল করে দিল। এই বলে তিনি হাসপাতালের বারান্দায় বিলাপ করছিলেন। এ ঘটনার পর হতে ঘাতক ভটভটির চালক কাহালু উপজেলার মহেশপুর গ্রামের মোকাব্বর হোসেন পলাতক রয়েছে।