বাহুবলে সড়ক দূর্ঘটনায় যুবক নিহত, ২ ঘন্টা মহাসড়ক অবরোধ

 ১০ জুলাই  ২০১৭,  সোমবার সহ দেখতে ক্লিক করুন

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি ॥॥

হবিগঞ্জের বাহুবল উপজেলার বশিনা নামকস্থানে সড়ক দুর্ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী মোজাম্মল হক (২৫) নিহত হয়েছেন। এঘটনায় স্থানীয় জনতা তাৎক্ষনিক ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ করে দেয়। সোমবার (১০ জুলাই) সকাল ৯ টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। নিহত যুবকের বাড়ী সিলেটের শাহপরান বলে জানা গেছে। তিনি সেমকো কোম্পানীতে রিপ্রেজেনটিটিভ হিসাবে হবিগঞ্জে কর্মরত ছিলেন। সকালে কোম্পানীর কাজে ব্যবহৃত মোটরসাইকেল নিয়ে বাহুবল যাচ্ছিলেন। স্থানীয় সুত্র ও পুলিশ জানায়, হবিগঞ্জের সহকারী পুলিশ সুপার (মাধবপুর সার্কেল) এস এম রাজু আহমেদ সকালে বিবিয়ানা গ্যাস ফিল্ডে একটি অনুষ্ঠানে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে বশিনা নামকস্থানে মোটরসাইকেলটি একটি আরএফএল গাড়ীর সঙ্গে ধাক্কা লেগে পুলিশের পিকআপে পড়লে এতে মোটর সাইকেল আরোহী গুরুতর আহত হন। তাকে সঙ্গে সঙ্গে পুলিশ গাড়ী করে হবিগঞ্জ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। স্থানীয়দের অভিযোগ- অন্য গাড়ীর সঙ্গে নয়, পুলিশের গাড়ীর সঙ্গে ধাক্কা লেগে যুবকটি মারা গেছে। এঘটনার খবর পেয়ে স্থানীয় জনতা দুই ঘন্টা ঢাকা- সিলেট মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ করে রাখে। ফলে মহাসড়কের উভয় পাশে শত শত যান বাহন আটকা পড়ে। ঘটনার খবর পেয়ে জেলা পুলিশ সুপার জয়দেব কুমার ভদ্র, উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুল হাই, উপজেলা নির্বাহী অফিসার জসিম উদ্দিন, শায়েস্তাগঞ্জ হাইওয়ে থানার অফিসার ইনচার্জ জসিম উদ্দিন, স্থানীয় ইউপি সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল আওয়াল, শ্রমিক নেতা আসকর আলী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে উত্তেজিত জনতাকে শান্ত দিলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়। পরে সকাল ১১টায় মহাসড়কে যান চলাচল শুরু হয়। হবিগঞ্জের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার রাসেলুর রহমান নিহতের বিষয়টি সাংবাদিকদের নিশ্চিত করে বলেন-উত্তেজিত জনতা মহাসড়ক বন্ধ করে রাখলে পুলিশ সুপার, উপজেলা চেয়ারম্যান উত্তেজিত জনতা শান্ত করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন। স্থানীয়দের অভিযোগ পুলিশের গাড়ির ধাক্কায় যুবকটি মারা গেছে।