অস্ত্র নিয়ে ভারতের সংসদে হামলার চেষ্টা

ভারতের সংসদ ভবনে অস্ত্র নিয়ে হামলার চেষ্টা করেছেন এক ব্যক্তি। এ সময় পার্লামেন্ট থানার পুলিশ তাকে আটক করেছে। ওই ব্যক্তি রাম রহিম সমর্থক বলে প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে। তবে কী উদ্দেশ্যে সংসদ ভবনে প্রবেশ করার চেষ্টা করছিলেন তা স্পষ্ট নয়।

আজ সোমবার (২ সেপ্টেম্বর) সকালে ধারাল অস্ত্র হাতে সংসদ ভবনে প্রবেশ করার চেষ্টা করেন ওই ব্যক্তি।

জানা যায়, সোমবার সকালে ওই ব্যক্তি একটি বাইক নিয়ে হঠাৎ সংসদ ভবনে প্রবেশ করার চেষ্টা করেন। ওই ব্যক্তির কাছে একটি ধারাল ছুরি ছিল। অবশ্য সে সংসদ ভবনে প্রবেশ করে কারো ওপর হামলা করার আগেই তাকে আটকে দিয়েছে পুলিশ।

২০০১ হামলার পর সংসদের নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরও জোরদার করা হয়েছে। ত্রিস্তরীয় নিরাপত্তা বলয়ে ঘিরে রাখা হয় সংসদ চত্বরকে। ওই ব্যক্তি অবশ্য প্রথম স্তরেই আটকে যান। সংসদ ভবনের গেটের কাছে তাকে আটকে দেয় নিরাপত্তারক্ষীরা।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের পর তার আচরণ সন্দেহজনক মনে হলে তাকে আটক করা হয়। ওই ব্যক্তির কাছ থেকে একটি ধারাল ছুরি পাওয়া গিয়েছে। তাকে পার্লামেন্ট থানার পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদ করছে। ওই যুবক যে বাইকে চেপে এসেছিল, সেই বাইকটিও বাজেয়াপ্ত করেছে পুলিশ।

প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে, ওই ব্যক্তি ডেরা সাচ্চা সৌদার প্রাক্তন প্রধান তথা ধর্ষক বাবা রাম রহিমের সমর্থক। দিল্লির লক্ষ্মীনগর এলাকার বাসিন্দা সে। নাম সাগর। রাম রহিমের বিরুদ্ধে আনা ধর্ষণের অভিযোগ মিথ্যা বলে তার দাবি। ধর্ষক রাম রহিমকে গ্রেফতার এবং তার জেল হওয়ার প্রতিবাদেই সংসদে ঢুকে বিক্ষোভ দেখাতে যাচ্ছিল সে। কিন্তু তার আগেই তাকে আটক করা সম্ভব হয়েছে।

আরও পড়ুন