কাশ্মীর উত্তেজনা নিয়ে জাইরার টুইট

ভারত অধিকৃত জম্মু-কাশ্মীর ইস্যুতে সংবিধানের যে ৩৭০ নম্বর অনুচ্ছেদে কাশ্মিরকে স্বায়ত্তশাসিত রাজ্যের মর্যাদা দেওয়া হয়েছে সেটি বাতিলের ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে সাক্ষাতের পর সোমবার রাজ্যসভায় এ সিদ্ধান্ত ঘোষণা করেন তিনি।

এদিকে রবিবার (৪ আগস্ট) অমর আবদুল্লাহ, মেহবুবা মুফতিদের গৃহবন্দি করে রাখায় উদ্বেগ আরও বাড়িয়েছিল, ১৪৪ ধারা জারি করার মতো ঘটনা। এরই মাঝে কাশ্মীর সমস্যা নিয়ে মুখ খুললেন প্রাক্তন অভিনেত্রী জাইরা ওয়াসিম। নিজের টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে গভীর রাত্রে বছর আঠেরোর জাইরা লেখেন, ‘ এ ও একদিন কেটে যাবে’। পাশে ‘হ্যাশ ট্যাগ’ দিয়ে লেখেন ‘কাশ্মীর’।

উল্লেখ্য, চলতি বছরের জুনেই উদীয়মান এই তরুণ অভিনেত্রী সিনেমা জগতকে চিরতরে বিদায় জানান। নিজের ইনস্টাগ্রামে সাড়ে পাঁচ পাতার একটি পোস্টে তিনি লিখেছিলেন, ফিল্মি কেরিয়ার তার বিশ্বাস এবং ধর্মের মাঝখানে এসে দাঁড়িয়েছে এবং সে কারণেই তিনি অভিনয় ছাড়ছেন। সেই পোস্টে জাইরা আরও বলেছিলেন, ‘অসচেতন ভাবে আমি আমার ইমান (বিশ্বাস)-এর থেকে বেরিয়ে এসেছি। কারণ আমি এমন একটা পরিবেশে কাজ করতাম যা ক্রমাগত আমার ইমানের মাঝে এসে দাঁড়াত, ধর্মের সঙ্গে আমার সম্পর্ক বিপন্ন হয়ে পড়েছিল”। জাইরার এই সিদ্ধান্তে বলি-মহলের কেউ কেউ যেমন তাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন আবার কেউ কেউ ‘অকৃতজ্ঞ’ বলতেও ছাড়েননি।

শুধু জাইরা-ই নন। কাশ্মীর-বিতর্ক নিয়ে বোমা ফাটিয়েছেন অভিনেতা অনুপম খের-ও।সোমবার টুইট করে তিনি বললেন, ‘কাশ্মীর নিয়ে সমাধানের কাজ শুরু হয়ে গিয়েছে।’ এই কথার মাধ্যমে কী ইঙ্গিত দিতে চেয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর একনিষ্ঠ সমর্থক হিসেবে পরিচিত অনুপম, জল্পনাও চলছিল তা নিয়ে। অভিনেত্রী দিয়া মির্জাও কাশ্মীরের শান্তির জন্য প্রার্থনা করে তার টুইটারে একটি পোস্ট দেন গত ৪ অগস্ট। তিনি লেখেন, ‘আমি কাশ্মীরের মানুষের সঙ্গে আছি। শান্তির জন্য প্রার্থনা করছি’।হ্যাশ ট্যাগ দিয়ে ‘রহেনা হ্যয় তেরে দিল মে’ -এর নায়িকা যোগ করেন কাশ্মীরকে আরও বেশি গুরুত্ব দেওয়া উচিত। সূত্র: আনন্দবাজার

আরও পড়ুন