স্কুল ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে প্রধান শিক্ষক গ্রেফতার

ময়মনসিংহের হালুয়াঘাটে স্কুল ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে স্কুলের প্রধান শিক্ষক মফিজ উদ্দিনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার (২৩ সেপ্টেম্বর) দুপুরে উপজেলার ধুরাইল ইউনিয়নের চকমোকামিয়া শহীদ খাজা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে। গ্রেফতার হওয়া মফিজ উদ্দিন ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক।

জানা যায়, সোমবার সকালে স্কুলছাত্রী মডেল টেষ্ট পরিক্ষায় অংশ গ্রহণ করতে চরগোরকপুর প্রাথমিক বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্রে যাওয়ার পর শিক্ষক মফিজ উদ্দিন স্কুলছাত্রীকে বিদ্যালয় সংলগ্ন স্থানে রেন্টিগাছের পাশে শ্লীলতাহানির চেষ্টা করেন।

এ সময় মেয়েটির চিৎকারে অন্যান্য শিক্ষার্থীরা ও সহকারী শিক্ষকগণ ছুটে গেলে শিক্ষক মফিজ উদ্দিন পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাটি স্থানীয়দের মাঝে জানাজানি হওয়ায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়।

এ ঘটনার খবর পেয়ে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আলহাজ্ব হোসাইন মোহাম্মদ ফারুক, সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা মোশারফ হোসেন ও গোলাম মোস্তফা খানকে ঘটনার তদন্ত করার দায়িত্ব দেন।

স্থানীয়রা জানান, শিক্ষক মফিজ উদ্দিন ইতিপূর্বে ছাত্রীদের সাথে এরকম একাদিক ঘটনা ঘটিয়েছেন। তদন্ত পূর্বক মফিজ উদ্দিনের শাস্তি দাবী করেন।

এ বিষয়ে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আলহাজ্ব হোসাইন মোহাম্মদ ফারুক বলেন, ‘খবর পেয়ে দুই জন সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তাকে ঘটনার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। প্রাথমিক ভাবে ঘটনার সত্যতা পাওয়ায় শিক্ষক মফিজ উদ্দিনের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবগত করা হয়েছে।’

এ বিষয়ে হালুয়াঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বিপ্লব কুমার বিশ্বাস বলেন, ‘স্কুল শিক্ষাথীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে শিক্ষক মফিজ উদ্দিনকে আটক করা হয়েছে। স্কুল শিক্ষার্থীর পরিবারের পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।’

এছাড়া ঘটনাটি শুনার পর উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে তদন্ত পূর্বক বিভাগীয় ও প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ রেজাউল করিম।

আরও পড়ুন