জীবনসঙ্গীকে বিচক্ষণ মানুষ হতে হবে

advertisement

অভিনেত্রী জয়া আহসান। তিনি শুধু বাংলাদেশের নয় কলকাতারও একজন জনপ্রিয় অভিনেত্রী। সদ্য মুক্তি প্রাপ্ত ছবি কৌশিক গাঙ্গুলির ‘বিজয়া’ তে তার কাজ সকলকে মুগ্ধ করেছে। এছাড়াও জয়ার প্রত্যেকটা কাজই দর্শকের খুব পছন্দ। জয়া আহসানকে বক্স অফিসের রাণী হিসেবে আখ্যা দিয়েছে ভারতের প্রভাবশালী গণমাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

তাদের বিনোদন ও লাইফস্টাইল ভিত্তিক ম্যাগাজিন ‘ইনডালজ’-এ জয়া আহসানকে নিয়ে ১৫ মার্চ একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে। সেখানে তার অভিনয়, ব্যক্তিজীবনের কিছু প্রসঙ্গ উঠে এসেছে। আর সেখানেই জয়াকে বলা হয়েছে- দ্য বক্স অফিস কুইন।

বাংলাদেশের পাশাপাশি কলকাতার ছবিতে অভিনয় করেও সুনাম কুড়িয়েছেন জয়া আহসান। টালিউডের অভিনেত্রীদের সঙ্গে তার দারুণ বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক। সেদিক থেকে দেখলে তার কিন্তু কলকাতায় তেমন কোনো ঘনিষ্ঠ বন্ধু নেই। এ প্রসঙ্গে জয়া বলেন, সময় বের করে আড্ডা দেওয়া আমার জন্য বেশ কঠিন। শুধু তা-ই নয়, আমার তো প্রেম করারও সময় নেই।

প্রেমের সময় নেই, তাহলে কি বিয়ের কথা ভাবছেন না অভিনেত্রী? পছন্দের কেউ কি তবে নেই? প্রশ্নের জবাবে অভিনেত্রী জয়া বলেন, ‘এখন পর্যন্ত না। বিয়ের পরেও করা যাবে। এত দ্রুত আমি ঘরোয়া পরিবেশে নিজেকে বন্দী করতে চাচ্ছি না। আমি আরও কাজ করতে চাই। পরিবার থেকে অবশ্য বিয়ের চাপ আসছে। কিন্তু আমি না শোনার ভান করে বসে থাকি।

তিনি তার জীবনসঙ্গীর কাছে কী কী গুণ আশা করেন? জয়া বললেন, ‘আমি চেহারাকে এত গুরুত্ব দেই না। আমার জীবনসঙ্গীকে অবশ্যই বিচক্ষণ, অনুভূতিশীল এবং প্রতিশ্রুতিশীল মানুষ হতে হবে। একজন সৃজনশীল ব্যক্তিকে কদর করার মতো মন-মানসিকতা থাকতে হবে তার।

সম্প্রতি জয়া শেষ করেছেন ‘বিনি সুতোয়’ ছবির কাজ। এতে তার বিপরীতে আছেন ঋত্বিক চক্রবর্তী। ছবিটির ডাবিং বাকি। এ জন্য ক’দিন পর তিনি যাবেন কলকাতা। গত কয়েক দিন আগে জয়া আহসান অভিনীত ‘বিউটি সার্কাস’-এর ফার্স্টলুক প্রকাশ পেয়েছে। এতে সার্কাসকন্যা ‘বিউটি’ রূপে জয়ার প্রথম ঝলকই ইতোমধ্যে সাড়া ফেলেছে।

You might also like

advertisement