হিজাব পরায় মুসলিম নারীকে যা করলো যুবক

advertisement

নিউজিল্যান্ডের মসজিদে বন্দুকধারীর হামলার পর বিশ্ববাসী যখন মুসলমান সম্প্রদায়কে সান্ত্বনা দিচ্ছে, ঠিক তখনই আবার দেশটির অকল্যান্ড রেলওয়ে স্টেশনে হিজাব পরিহিত দুই মুসলিম নারীকে বর্ণবাদী আচরণের মুখোমুখি হতে হয়েছে। কুৎসিত ভাষায় ওই দুই বোনকে মাউন্ট অ্যালবার্ট ট্রেন স্টেশনে এক ব্যক্তি বলেছেন, ফিরে যাও, তোমাদের ফা…ইং দেশে। এ ঘটনার পর ২১ বছরের ইকরা ও তার বোন বলেছেন, তাদের পরিববার এখন জনসম্মুখে হিজাব না পরার বিষয়টি বিবেচনা করছেন। ইকরা যখন মিডিয়াতে এ বিষয়ে কথা বলছিলেন, তখন তার কণ্ঠ ধরে আসছিল।

রবিবার বেলা একটায় এ ঘটনা ঘটে। এজন্য তিনি মুসলিম সম্প্রদায়ের ভাই-বোনদের ভ্রমণের বিষয়ে অতিরিক্ত সতর্কতা এবং দলবেঁধে ভ্রমণেরও পরামর্শ দিয়েছেন। নিউজিল্যান্ডের হেরাল্ড অনলাইনকে ইকরা বলেন, সবচেয়ে আতঙ্কের বিষয় হলো সেখানো কোনো নিরাপত্তা ব্যবস্থা ছিল না।

ইকরা বলেন, তিনি তার ছোট বোন আসমাকে নিয়ে রেল স্টেশনে অবস্থান করছিলেন, তখন মাতাল এক ব্যক্তি মদের বোতল হাতে তাদের কাছে আসেন। এ সময় চিৎকার দিয়ে তিনি বলতে থাকেন, আমার দিকে কি দেখছো? আমি নারীদের ঘৃণা করি। ফিরে যাও, তোমাদের ফা…ইং দেশে। সেখান থেকে বোনকে নিয়ে বেরিয়ে যাওয়ার আগ পর্যন্ত ওই মাতাল লোকটি তাদের গা ঘেঁষার চেষ্টা করে গিয়েছিল।
আমাদের পাশেই এক ইউরোপীয় নারী ছিলেন। আমাদের সঙ্গে ওই ব্যক্তির এমন ব্যবহার দেখে তিনি কেঁদে ফেলেন। সে মোটেও বিশ্বাস করতে পারছিল না যে শুক্রবার হামলার পরও কোনো মুসলিম নারীর সঙ্গে কেউ এমন ব্যবহার করতে পারে, যোগ করেন ইকরা।

নিউজিল্যান্ডের হেরাল্ড অনলাইনকে ইকরা আরও বলেন, আমি যখন পুলিশকে কল করার জন্য ফোনটি বের করি। তখন লোকটি চিৎকার করে বলেন, আমি তোমার ছবি পেতে যাচ্ছি। তুমি ফা…ইং কুৎসিত মুসলিম। ফিরে যাও তোমার দেশে এটা বলার আগে তিনবার তিনি ওই কথাটি বলেছিলেন।

এ ঘটনার পর ইকরা থানায় অভিযোগ করেন। পুলিশ নিশ্চিত করেছেন, তার অভিযোগ গ্রহণ করা হয়েছে।

You might also like

advertisement