মুক্তিযোদ্ধা উত্তরাধিকারী বৃত্তি পাবেন ২২০০ বাংলাদেশি শিক্ষার্থী

advertisement

বাংলাদেশের স্বাধীনতায় বীর মুক্তিযোদ্ধাদের অসামান্য অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ ভারত সরকার প্রতিবছর মুক্তিযোদ্ধা উত্তরাধিকারীদের বৃত্তি দিয়ে আসছে। চলতি বছর ভারত সরকারের ‘মুক্তিযোদ্ধা উত্তরাধিকারী বৃত্তি’র জন্য নির্বাচিত হয়েছেন ২২০০ জন বাংলাদেশি শিক্ষার্থী ।

মঙ্গলবার (১৯ মার্চ) ভারতীয় হাইকমিশনে আয়োজতি এক অনুষ্ঠানে এ তথ্য জানান হাইকমিশনার রীভা গাঙ্গুলী দাশ। নতুন ও পুরনো প্রকল্পের অধীনে তারা এই বৃত্তি পাবেন। ভারতীয় হাইকমিশন নির্বাচিত প্রার্থীদের বৃত্তি দেওয়ার জন্য মিশনের চ্যান্সেরি কমপ্লেক্সে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ভারতীয় সেনাবাহিনীর ইস্টার্ন কমান্ডের জিওসি-ইন-সি লেফটেন্যান্ট জেনারেল মনোজ মুকুন্দ নারাভানে। বক্তব্য রাখেন ভারতীয় হাইকমিশনার রীভা গাঙ্গুলী দাশ। এ সময় বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতনরা উপস্থিত ছিলেন।
চলতি বছর ২ হাজার ২শ জন শিক্ষার্থী নতুন ও পুরনো প্রকল্পের অধীনে বৃত্তি লাভের জন্য নির্বাচিত হয়েছে। মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় বাংলাদেশের সব জায়গা থেকে শিক্ষার্থীদের চিহ্নিত করতে ব্যাপক সহযোগিতা করেছে। এ বছর থেকে ডিজিটাল ইন্ডিয়া উদ্যোগের সঙ্গে ডিরেক্ট ব্যাংক ট্রান্সফার (ডিবিটি) পদ্ধতির মাধ্যমে শিক্ষার্থীর ব্যাংক অ্যাকাউন্টে বৃত্তির টাকা সরাসরি জমা হবে।

You might also like

advertisement